Daily Sylhet Sangbad - Latest Bangla News বিশ্বনাথ প্রশাসনিক ভবনের সামন থেকে ছাত্রলীগ নেতার মোটরসাইকেল চুরি!
বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:৩২ পূর্বাহ্ন

সিলেট



নিজস্ব প্রতিবেদন

প্রকাশ: ২০২২-০৮-২৪ ১২:৪১:২২


বিশ্বনাথ প্রশাসনিক ভবনের সামন থেকে ছাত্রলীগ নেতার মোটরসাইকেল চুরি!

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলা পরিষদের প্রশাসনিক ভবনের সামন থেকে দিনদুপুরে উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা রাজন আলীর মোটরসাইকেল চুরি হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ আগস্ট) বিকেল সোয়া ৪টায় বিশ্বনাথ উপজেলা প্রশাসনিক ভবনের সামন থেকে ওই মোটরসাইকেলটি চুরি হয়।

উপজেলার মোহাম্মদপুর গ্রামের বাসিন্দা রাজন আলী এর আগে বিশ্বনাথ সরকারি ডিগ্রি কলেজ ছাত্রলীগের সাংস্কুতিক সম্পাদকের দায়িত্বে ছিলেন

রাজন জানান, তার ব্যবহৃত ফ্যাশন প্রো সিলেট-হ ১৩-৯৬৯৯ নাম্বারের মোটরসাইকেলটি বিকেল ৪টা ১৪ মিনিটে প্রশাসনিক ভবনের নারিকেল গাছের পাশে রেখে উপজেলা পরিষদ অফিসের ভিতরে যান।

সেখানে গিয়ে তিনি কিছু সময় পর ড্রিংক (কোমল পানীয়) পরিষদের বাহিরের একটি দোকানে যান। এরপর ৫মিনিটের ভিতরে ফিরে এসে দেখেন তার মোরসাইকেলটি নেই। এরপর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নুসরাত জাহানের সহযোগীতায় প্রশাসনিক ভবনের সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করেন রাজন।

এ ঘটনার খবর পেয়ে সন্ধ্যা ৬টারদিকে বিশ্বনাথ থানা পুলিশের এসআই রুমেন আহমদসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় সিসিটিভির ফুটেজ দেখে উপজেলা পরিষদের প্রশাসনিক ভবনের সামনে থাকা লোকজনদের জিজ্ঞাসাবাদ করে মোটরসাইকেল উদ্ধার চোর শনাক্তের চেষ্ঠা করেন। তবে, সর্বশেষ রাত পৌনে ১২টা পর্যন্ত কোন হদিস পাননি পুলিশ কর্মকর্তারা।

সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গেছে, দুই অজ্ঞাতনামা চোর প্রথমে উপজেলার প্রশাসনিক ভবনের আশে পাশে ঘুরাফেরা করেন। তাদের এজনের মাস্ক পরা আর অন্যজন মাস্ক ছাড়া। এরপর গাড়ির মালিক রাজন ঠান্ডা আনতে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে একজন নারিকেল গাছের নিচে রাখা ওই মোটরসাইকেলটির গাঢ়-লক ভেঙে ফেলে চলে যান। তারপর অপরজন গাড়ির পাশে গিয়ে ষ্টার্ট দিয়ে মোটরসাইকলেটি নিয়ে উপজেলা পরিষদের প্রধান গেট দিয়ে পালিয়ে যান।

এব্যাপারে বিশ্বনাথ উপজেলা চেয়ারম্যান এসএম নুনু মিয়া বলেন, বিষয়টি দুঃখজনক। উপজেলার প্রশাসনিক ভবনের সামন থেকে মোটরসাইকেল চুরি এটা মেনে নেওযা যায়না। যে-করেই হউক চুরি হওয়া মোটরসাইকেলটি উদ্ধার করতে হবে। এজন্য পুলিশ প্রশাসনের সহযোগীতা কামনাও করেছেন তিনি।

বিশ্বনাথ থানার ওসি গাজী আতাউর রহমান বলেন, সিসিটিভি ফুটেজ দেখে চোর শনাক্তের চেষ্টা করা হচ্ছে। এরা এলাকার চোর নয়। তাই ফুটেজ দেখে তাদের শনাক্তও করা যাচ্ছেনা। তবে,ওই দুই চোরকে শনাক্তসহ গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশি তৎপরতা অব্যাহত আছে বলেও জানান তিনি।


ডেসিস/জেকে ২৩ আগস্ট ২০২২ ইং

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত

এ বিভাগের আরো সংবাদ

Google Ad Code Here